নাটোররাজশাহীসংবাদ সারাদেশ

নাটরে পটকা বানানোর সময় বিস্ফোরণে স্কুলছাত্র আহত

নাটোর প্রতিনিধিঃ

নাটোরে আহত স্কুলছাত্র রিপন ইউটিউব দেখে পটকা বানাতে গিয়ে বিস্ফোরণে বাঁ হাতের তিন আঙুলের কিছু অংশ হারিয়েছে । গতকাল মঙ্গলবার রাতে রিপন আলী (১৫) নামের ওই কিশোরের নানার বাড়ি নাটোরের লালপুর উপজেলার বিলমাড়িয়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। লালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সে চিকিৎসাধীন।

লালপুর থানা ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, রিপন আলী রংপুর সদরের সাগর আলীর ছেলে। তার মা রিমা বেগম বাবার বাড়ি বিলমাড়িয়া গ্রামে থাকেন। গতকাল সকালে তিনি পাবনার ঈশ্বরদীর একটি জুট মিলে কাজ করতে যান। বাড়িতে থাকা ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়ুয়া ছেলে রিপন রাত নয়টার দিকে নিজের ঘরে বসে ইউটিউব দেখে দেশলাইয়ের বারুদ দিয়ে পটকা বানাচ্ছিল। একপর্যায়ে বারুদের বিস্ফোরণ ঘটে। বিস্ফোরণে তার বাঁ হাতের মাঝের তিনটি আঙুলের মাথা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

শব্দ শুনে আশপাশের লোকজন ওই ঘরে ছুটে গিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করেন। ছেলেটির নানা কবির শেখের ভাষ্য, তাঁর নাতি বিলমাড়িয়া উচ্চবিদ্যালয়ে ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়ালেখা করে। রিপন তার দুই বন্ধুকে নিয়ে মজা করার জন্য পটকা বানানোর চেষ্টা করছিল। হঠাৎ বিস্ফোরণ ঘটে। ঘটনার পরপরই রিপনকে লালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়ার পর তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

লালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসক কর্মকর্তা মো. সুরুজ্জামান শামীম বলেন, রিপনের আঙুল কাটার প্রয়োজন হতে পারে। তাই উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহীতে নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। লালপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ফজলুর রহমান জানান, ঘটনাটি শোনার ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। প্রাথমিকভাবে মনে হচ্ছে, ছেলেটি বন্ধুদের সঙ্গে মজার ছলে পটকা বানানোর চেষ্টা করছিল। তবুও বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button