নওগাঁরাজশাহীরাজশাহীর সংবাদ

নওগাঁর আত্রাইয়ে নিষিদ্ধ রিংজাল দিয়ে অবাধে মৎস্য শিকার

আত্রাই (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ

নওগাঁর আত্রাইয়ে নিষিদ্ধ রিংজাল দিয়ে অবাধে চলছে মৎস্য শিকার। স্থানীয় কর্তৃপক্ষের অবহেলার সুযোগে এক শ্রেণীর অসাধু মৎস্য শিকারীরা বেপরোয়া হয়ে উঠেছে।

সম্প্রতি কয়েক দিনের অবিরাম বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পানির ঢলে আত্রাই নদীর পানি বৃদ্ধির সাথে সাথে বিভিন্ন খালবিলেও পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। পানি বৃদ্ধির সাথে দেশী প্রজাতির বিভিন্ন মাছের বিচরণও বেড়েছে। এ সুযোগে এলাকার প্রভাবশালী একটি মহলের ছত্রছায়ায় মৌসুমী মৎস্য শিকারীরা নিষিদ্ধ রিংজাল দিয়ে অবাধে মাছ শিকার করছে। এতে করে উপজেলার কয়েক হাজার প্রকৃত জেলে পরিবার অসহায় হয়ে পড়েছেন।

জানা যায়, উপজেলার ৮ ইউনিয়নে কয়েক সহস্রাধিক জেলে পরিবার রয়েছে। তারা সারা বছর মাছ শিকার করে জীবিকা নির্বাহ করেন। বছরের অন্যান্য সময় তেমন মাছ না হলেও বর্ষা মৌসুমের মাছ বিক্রি করেই তাদের সারা বছরের আয় রোজগার করে নেয়। এ দিকে অবিরাম বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পানির ঢলে আত্রাই নদীসহ বিভিন্ন খালবিলেও পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। পানি বৃদ্ধির সাথে দেশী প্রজাতির বিভিন্ন মাছের বিচরণও বৃদ্ধি পেয়েছে। মাছের প্রজনন বৃদ্ধি পেলেও অসাধু মাছ শিকারীদের রিংজালে তা চরমভাবে ব্যাহত হচ্ছে। ফলে বর্ষা মৌসুমের শেষের দিকে যেমন দেখা দেবে মাছের সংকট তেমনি বিপাকে পড়তে হবে জেলেদের বলে মনে করছেন এলাকার সচেতন মহল।

আত্রাই উপজেলা মৎস্যজীবি সমবায় সমিতির সভাপতি ভূষণ চন্দ্র হাওলদার বলেন, নদী ও খালবিলে আশংকাজনক হারে রিংজালের ব্যবহার বেড়েছে। আর এ জালে সব ধরণের মাছ নিধন করা সম্ভব। এভাবে মাছ নিধন হতে থাকলে মৎ্যস্যজীবিরা অসহায় হয়ে পড়বেন।

এ ব্যাপারে উপজেলা মৎস্য সিনিয়র কর্মকর্তা পলাশচন্দ্র দেবনাথ বলেন, বিভিন্ন স্থানে রিংজালের ব্যবহার হচ্ছে। আমরা এগুলোর প্রতিরোধে অভিযান পরিচালনা করছি।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button