নাটোররাজশাহীসংবাদ সারাদেশ

বড়াইগ্রামে অপহৃত শিশু উদ্ধারসহ আটক অপহরণকারী

নাটোর প্রতিনিধিঃ

৪০ লাখ টাকা মুক্তিপনের দাবীতে নাটোরের বড়াইগ্রাম এর শিশু আলহাজ কে অপহরণ করা হয়। এক দিন পর ঢাকা থেকে অপহৃত শিশু আলহাজ প্রামানিককে উদ্ধার করেছেন নাটোর পুলিশ। এ সময় অপহরণকারী কামরুল ইসলামকে অপহরনের কাজে ব্যবহৃত প্রাইভেট কারসহ আটক করা হয়।

গতকাল সোমবার রাতে ঢাকার বাড্ডা এলাকা থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত শিশু আলহাজ প্রামানিক হল বড়াইগ্রামের বাগডোব এলাকার আকতার প্রামানিকের ছেলে।

আটককৃত কামরুল ইসলাম হলেন একই এলাকার মৃত জসিম উদ্দিনের ছেলে এবং শিশু আলহাজের মামা। আজ সকাল ১১.৩০ মিনিটে নাটোরের পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানান পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা।

পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা বলেন, গত ২১ আগস্ট সকাল ১১ টার দিকে বাড়ীর পাশের রাস্তায় শিশু আলহাজ প্রামানিককে খেলা করতে রেখে বাজারে ভ্যান মেরামত করতে যান তার বাবা। প্রায় ৩০ মিনিট পর বাজার থেকে ফিরে এসে তিনি দেখেন সেখানে তার শিশু সন্তান টি নেই। শিশু টিকে না পেয়ে খোঁজাখুজি শুরু করেন তিনি। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তাকে না পাওয়া গেলে তিনি বড়াইগ্রাম থানায় একটি সাধারন ডায়েরী করেন।

ঘটনা ঘটার পরের দিন একটি মোবাইল ফোন থেকে শিশুটির বাবার কাছে ৪০ লাখ টাকা মুক্তিপন দাবী করেন অপহরণকারী। সেই সূত্র ধরেই তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে পুলিশের একটি টিম অভিযানে নামেন। অভিযান চলাকালীন এক পর্যায়ে ঢাকার বাড্ড-রামপুরা ওভার ব্রিজের নিচে একটি প্রাইভেট কার থেকে অসুস্থ্য অবস্থায় শিশু আলহাজকে উদ্ধার করা হয় এবং অপহরনকারী কামরুল ইসলামকে আটক করা হয়।

শিশু আলহাজকে কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালে চিকিৎসা প্রদান শেষে নাটোরে নিয়ে এসে পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে কামরুল ইসলামকে আদালতে প্রেরণ করা হবে বলে জানানো হয়েছে

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button